Start Planning
শুভ জন্মাষ্টমী

শুভ জন্মাষ্টমী 2020, 2021 এবং 2022

শুভ জন্মাষ্টমী যা “কৃষ্ণ জন্মাষ্টমী” নামেও পরিচিত, একটি সরকারি ছুটির দিন। এটি একটি হিন্দু ধর্মীয় উৎসব যা কৃষ্ণের জন্মদিনে উদযাপন করা হয়, এই দিনে ভগবান বিষ্ণুর অষ্টম অবতার হয়েছিলো বলে বিশ্বাস করা হয়।

বছরতারিখদিনছুটির
202011 অগাস্টমঙ্গলবারশুভ জন্মাষ্টমী
202130 অগাস্টসোমবারশুভ জন্মাষ্টমী
202219 অগাস্টশুক্রবারশুভ জন্মাষ্টমী
20236 সেপ্টেম্বরবুধবারশুভ জন্মাষ্টমী
202426 অগাস্টসোমবারশুভ জন্মাষ্টমী

জন্মাষ্টমীর দিনটি হিন্দু ক্যালেন্ডারের উপর ভিত্তি করে নির্ধারণ করা হয়েছে, যা সৌর ও চন্দ্র উভয়ের তথ্যের উপর ভিত্তি করে তৈরি। গ্রেগরিয়ান ক্যালেন্ডার অনুযায়ী, তারিখটি সাধারনত আগস্ট মাসে বা সেপ্টেম্বর মাসের প্রথম দিকের মধ্যে পড়বে।

অধিকাংশ বাংলাদেশিরা মুসলমান হওয়া সত্ত্বেও, এই হিন্দু ছুটির দিনটি সরকারী ছুটির তালিকাভুক্ত। এবং এর পরপরই আসে আরেকটি হিন্দু উৎসব, নন্দোৎসব উৎসব, যা কৃষ্ণের জন্মদিন উপলক্ষে উপহার বিতরণের মাধ্যমে পালন করা হয়। এর ফলে, এটি বিশেষভাবে বাংলাদেশের হিন্দুদের জন্য একটি উৎসবের সময়।

শুভ জন্মাষ্টমীর সময়, অনেকে নাটকীয় নৃত্যে যোগ দেন বা অংশ গ্রহণ করেন, যেগুলো কৃষ্ণের জীবনের ঘটনার উপর পুনঃনির্মাণ করা। অন্যরা মধ্যরাত পর্যন্ত ছুটির দিনের উপর ভিত্তি করে তৈরি করা গান গেয়ে থাকেন, কারণ তারা মনে করেন এ সময় কৃষ্ণের জন্ম হয়েছিলো। এবং অনেক উপবাস করবেন কিন্তু পরের দিন একটি রঙিন, আনন্দপূর্ণ উৎসবে যোগদান করবেন।

ঢাকা শহরের ঢাকেশ্বরী মন্দির থেকে একটি বিশেষ শোভাযাত্রা বের হয় এবং শহরের পুরোনো অংশের মধ্য দিয়ে এগিয়ে যায়। এই শোভাযাত্রা ১৯০২ সাল থেকে ১৯৪৮ সাল পর্যন্ত প্রতি বছর সংঘটিত হত, কিন্তু এর সমাপ্তি ঘটে যখন বাংলাদেশ প্রথম মুসলিম শাসনের অধীনে আসে। যদিও, এটি ১৯৮৯ সালে আবার শুরু হয়েছিল।